Gmail! | Yahoo! | Facbook | Bangla Font
শিরোনাম
প্রচ্ছদ / ছবি ঘর / ঝিনাইদহে এক রোগে ছিন্ন ভিন্ন সংসার
ঝিনাইদহে এক রোগে ছিন্ন ভিন্ন সংসার

ঝিনাইদহে এক রোগে ছিন্ন ভিন্ন সংসার

আতিকুর রহমান টুটুল,সবুজবাংলা২৪ডটকম (ঝিনাইদহ) : রোগের কারণে দুই বোনকে তালাক দিয়েছে তাদের স্বামী। পরিবারের আক্রান্ত শিশুরা স্কুলে গেলে তাদের পাশে কেও বসতে চাই না। খেলার মাঠেও তারা একঘরে। অথচ রোগটি ছোঁয়াচে নয়। তবে এটা ঠিক নিউরোফাইব্রোমাটোসিস নামক এই রোগের নিদ্দিষ্ট কোন চিকিৎসা নেই। নেই এই রোগে আক্রান্তদের মৃত্যুর ঝুকি।

ঝিনাইদহের হরিণাকুন্ডু উপজেলার কেসমত ঘোড়াগাছা গ্রামের পল্লী চিকিৎসক মরহুম ইজাল উদ্দীনের ছেলে ইফাজ উদ্দীন, মেয়ে নার্গিস ও পারভিনা খাতুন নিউরোফাইব্রোমাটোসিস রোগে আক্রান্ত তাদের পিতাও ছিলেন এই রোগের রোগী। পরবর্তীতে ইফাজ ও তার বোনের সন্তান অনিক, রোমিও এবং ছোঁযা খাতুন আক্রান্ত হয়েছে দুরারোগ্য এই ব্যধিতে।

স্কুল ও খেলার মাঠে এক কঠিন বাস্তবতার মুখোমুখি হতে হচ্ছে এ সব শিশুদের। হতদরিদ্র এই পরিবারের দুই মেয়ে নার্গিস ও নাসরিনকে তাদের স্বামীরা সন্তানসহ তালাক দিয়েছেন। রোগটি ছোঁয়াচে না হলেও স্কুল কিংবা খেলার মাঠেও পরিবারের আক্রান্ত শিশুদের সাথে অন্য শিশুরা মিশতে চায় না।

আর্থিক অসচ্ছলতার কারণে চিকিৎসা বঞ্চিত গোটা পরিবারটি এখন অসহায়। সপ্তম শ্রেনীতে পড়ুয়া রোমিও পরের ক্ষেতে শ্রমিকের কাজ করে পড়ালেখা করে। মাত্র আড়াই শতক জিমির উপর ঘিঞ্জি পরিবেশে বসবাস করছেন পল্লী চিকিৎসক ইজাল উদ্দীনের পরিবার। তাদের পুর্নবাসন ও সহমর্মিতা জানাতে সমাজের বিত্তবানরা এগিয়ে আসতে পারেন।

সবুজবাংলা২৪ডটকম/ঝিনাইদহ জেলা প্রতিনিধি / ১৯ অক্টোবর ২০১৭ /বৃহস্পতিবার/ ১৮:১৫

মন্তব্য

Scroll To Top
Copy Protected by Chetans WP-Copyprotect.